1. azadzashim@gmail.com : বিডিবিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম :
  2. litonsaikat@gmail.com : neelsaikat :
শিরোনাম:

এমপি বদি কর্তৃক কর্মসৃজন প্রকল্পের কর্মকর্তা লাঞ্চিত

  • Update Time : সোমবার, ২৪ অক্টোবর, ২০২২
  • ৭৪ Time View

বার্তা পরিবেশক: কক্সবাজারের টেকনাফে অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান (ইজিপিপি-প্লাস) কর্মসূচির সরকারি প্রকল্পের অধীনে কর্মরত স্টাফ পলাশ কুমার রায়কে সাবেক এমপি আব্দুর রহমান বদি কর্তৃক শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করার অভিযোগ উঠেছে। জানা যাচ্ছে এ ঘটনায় প্রতিবাদ জানিয়ে পুরো জেলায় কর্মবিরতি দিচ্ছে প্রকল্পের অধীনে কর্মরত সকল স্টাফ।

রোববার (২৩ অক্টোবর) এ নিয়ে ভুক্তভোগী পলাশ কুমার জেলা প্রশাসক বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

অভিযোগপত্র থেকে জানা গেছে, সরকার অতিদরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচি হিসেবে ইজিপিপি-প্লাস নামের একটি কর্মসূচি হাতে নেয়। এর অধীনে টেকনাফ উপজেলায় কাজ করতে গিয়ে পলাশ কুমার রায়কে সাবেক এমপি আব্দুর রহমান বদি শারীরিকভাবে লাঞ্চিত করেছেন।

বেসরকারি সংস্থা সুশীলন এই প্রকল্পের সহায়তাকারী ফার্ম হিসেবে কক্সবাজার জেলায় ইজিপিপি প্রকল্পের কাজ করে আসছে। এরই অংশ হিসেবে গত ২০২১-২২ অর্থবছরে প্রথম ৫৮ দিন ও পরবর্তী ৫০ দিনের কাজে কিছু কিছু উপজেলায় মারাত্মক অনিয়ম ও দুর্নীতির বিষয়ে প্রকল্প অফিসসহ দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা অধিদপ্তরের মহাপরিচালককে অবহিত করা হয়। পরে এ ঘটনায় ৫ সদস্যবিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়।

তদন্তে বেশ কিছু উপজেলার অনিয়ম ও দুর্নীতির বিষয়টি সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হয়। এর প্রেক্ষিতে সকল উপ-সহকারী প্রকৌশলী (ইজিপিপি’ প্রকল্প) বদলি হওয়ায় ২০২২-২৩ অর্থবছরে ইজিপিপি প্রকল্পের কাজ নিয়মতান্ত্রিকভাবে শুরু হয় এবং কেউ কোনো নিয়ম বা দুর্নীতি করতে না পারায় বিগত অর্থ বছরে যারা ব্যাপকভাবে অনিয়ম ও দুর্নীতি করেছে তারা অত্যন্ত নাখোশ হন এবং অনিয়মের নেপথ্যে রাঘব বোয়ালেরা সুশীলনের মাঠ কর্মীসহ সুশীলন কর্তৃপক্ষ যাতে স্বচ্ছতা ও সুনামের সাথে কাজ করতে না পারে তার সুদূরপ্রসারী লক্ষ্য নিয়ে চক্রান্ত শুরু করেন। যা মহেশখালী উপজেলার শাপলাপুর ও কুতুবজোম ইউনিয়নে কর্মরত সুশীলনের মাঠকর্মীদের চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যগণ অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ, ভয়ভীতি প্রদর্শন এবং মিথ্যা অপবাদ দিয়ে হাজিরা গ্রহণে নিরুৎসাহিত করতে চক্রান্ত করেন।

জানা গেছে, গত ২২/১০/২০২২ ইং তারিখ সকাল আনুমানিক ১০টার দিকে ইজিপিপি প্রকল্পে টেকনাফ উপজেলায় কর্মরত সুশীলনের “ডাটা এন্ট্রি অপারেটর কাম কমিউনিটি মোবিলাইজার” পলাশ কুমার রায় টেকনাফ সদর ইউনিয়নের ৫ নং ওয়ার্ডে চলমান উপ-প্রকল্পে উপকারভোগীদের হাজিরা নেওয়ার কাজ শুরু করেন। এমন সময় মটরসাইকেল যোগে টেকনাফ-উখিয়ার সাবেক এমপি আব্দুর রহমান বদিসহ বেশকিছু লোক সেখানে উপস্থিত হন এবং সুশীলনের মাঠকর্মী পলাশ রায়কে জিজ্ঞাসা করেন, ‘তুই কি উপকারভোগীদের হাজিরা নিয়েছিস?’ উত্তরে পলাশ কুমার রায় বলেন, ‘স্যার আমি হাজিরা নেওয়া শুরু করেছি’—এ কথা বলার সঙ্গে সঙ্গে তিনি (আব্দুর রহমান বদি) সুশীলনের কর্মী পলাশ কুমার রায়কে কিল, ঘুষি লাথিসহ মারাত্মকভাবে আহত করেন একইসঙ্গে যাতে কোনো প্রকল্পে হাজিরা গ্রহণ না করে তার নির্দেশনা জারি করেন। অন্যথায় প্রাণনাশের হুমকি দেন।

আশঙ্কা করা হচ্ছে, টেকনাফ উপজেলার সকল ইউনিয়ন ও মহেশখালী উপজেলার শাপলাপুর ও কুতুবজোম ইউনিয়নের সুশীলনের মাঠ কর্মীদের জীবনের নিরাপত্তা না থাকায় ইজিপিপি প্রকল্পের কাজ সুশীলনের পক্ষে সঠিকভাবে মনিটরিং করা ও হাজিরা নেয়া সম্ভব নয়।

এ বিষয়ে জানতে সাবেক সাংসদ আব্দুর রহমান বদির সঙ্গে মুঠোফোনে একাধিকবার যোগাযোগ করা হলে সংযোগ না পাওয়ায় বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

Please Share This Post in Your Social Media

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

More News Of This Category
© 2018 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | dbdnews24.com
Site Customized By NewsTech.Com