1. azadzashim@gmail.com : বিডিবিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম :
  2. litonsaikat@gmail.com : neelsaikat :

ঘূর্ণিঝড়ে প্রাণহানি কম, আসছে ক্ষয়ক্ষতির খবর

  • Update Time : রবিবার, ১০ নভেম্বর, ২০১৯
  • ২৫ Time View

ডিবিডিনিউজ২৪ ডেস্ক :

ইউএনও বলেন, উপজেলার দুর্গাবাটি, দাঁতিনাখালি ও চৌদ্দরশি বাঁধ মারাত্মক ঝুঁকির মধ্যে রয়েছে। নদীতে এ সময় ভাটা থাকলেও ঝড়ের তাণ্ডবে নদীর পানি বেড়িবাঁধ পর্যন্ত ছুঁয়ে যায়। সকাল সাতটায় জোয়ার লাগার পর থেকে জলোছ্বাসের আশংকা বৃদ্ধি পেয়েছে।

তিনি জানান, বিভিন্ন স্থানে রাস্তায় গাছ পড়ে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে। পুরো এলাকায় বিদ্যুৎ ও ইন্টারনেট সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। গাবুরা, পদ্মপুকুর, আটুলিয়া, কাশিমারিসহ বিভিন্ন ইউনিয়নের শতশত চিংড়ি ঘের পানিতে তলিয়ে গেছে।

ইউএনও বলেন, তবে সকাল ৯টার পর বুলবুলের তাণ্ডব থেমে গেছে। আকাশে মেঘ কেটে গিয়ে রোদের দেখা মিলেছে।

খুলনা: ঘূর্ণিঝড়ে খুলনায় তিন হাজারেরও বেশি ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। এর মধ্যে কয়রা উপজেলায় ১ হাজার ৫০০ এবং দাকোপ উপজেলায় ১ হাজার ৭৬৫টি ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে।

এছাড়া দাকোপ উপজেলায়  ৩১৫টি চিংড়ির ঘের ও ৪২৫টি পুকুর ভেসে গেছে।

জেলা কন্ট্রোল রুমের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছেন খুলনার জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন।

খুলনায় ক্ষতিগ্রস্ত বাড়ি -সমকাল

এদিকে ঝড়ের কারণে রাত ২টা থেকে এ দুটি উপজেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে।

রামগতি (লক্ষ্মীপুর): ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুলে’র আঘাতে লক্ষ্মীপুরের রামগতিতে অর্ধশত বসতঘর বিধ্বস্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। রোববার সকালে আঘাত হানা এ ঝড়ে গাছ ও ঘরের নিচে চাপা পড়ে আহত হয়েছেন অন্তত ১২ জন। মারা গেছে একটি গবাদি পশু। এছাড়াও ঝড়ের আঘাতে দেড় শতাধিক কাঁচাঘর আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে বলে জানা যায়।

চর আব্দুল্লাহ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কামাল উদ্দিন জানান, সকাল সাড়ে ৮টার দিকে ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ তার ইউনিয়নের চরগজারিয়া ও তেলিরচরে আঘাত হানে। এতে আনোয়ার, নুরমোহাম্মদ, মোস্তাফিজ, নুর ছলেমন, আবদুর রশিদ ও নুর করিমের বসতঘরসহ ৪৬টি বসতঘর সম্পূর্ণ বিধ্বস্ত হয়। ইউনিয়ন পরিষদের কার্যালয়সহ আংশিক ক্ষতিগ্রস্ত হয় দেড়শতাধিক কাঁচাঘর। উপড়ে পড়ে অসংখ্য গাছ-পালা। এ সময় গাছ ও ঘরের নিচে চাপা পড়ে চেয়ারম্যান বাজার এলাকার আবদুর রহিমের ছেলে মো. জসিমসহ (২৫) অন্তত ১২ জন আহত হন। আহতদেরকে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

তিনি আরও জানান, ঘরচাপা পড়ে ওই এলাকার ছিদ্দিক মাঝীর একটি গরু মারা যাওয়ার পাশাপাশি ঝড়ো-হাওয়ায় উঠতি আমন ধানের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

রামগতি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আব্দুল মোমিন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ক্ষতিগ্রস্তদের তালিকা প্রস্তুত করার জন্য সংশ্লিষ্ট জনপ্রতিনিধিদেরকে বলা হয়েছে। তালিকা পেলে তাদেরকে সহায়তা প্রদান করা হবে।

চর গজারিয়া (লক্ষ্মীপুর): লক্ষ্মীপুরের চর গজারিয়ায় ‘ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের’ আঘাতে গাছ উপড়ে প্রায় শতাধীক বসতঘর বিধ্বস্ত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এসময় নারী-পুরুষসহ ১০ জন আহত হয়েছে।

জেলা প্রশাসক অঞ্জন চন্দ্র পাল বলেন, জেলার দুর্গত মানুষের জন্য ৪৫০ মে. টন চাল, নগদ টাকা ও পর্যাপ্ত শুকনো খাবার মজুদ রাখা হয়েছে।

নাজিরপুর (পিরোজপুর): ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুলে’র তাণ্ডবে পিরোজপুরের নাজিরপুরে বসতঘরের ওপর গাছ পড়ে একই পরিবারের দু’জন গুরুতর আহত হয়েছেন। এছাড়াও উপজেলায় সহশ্রাধিক ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। পাশাপাশি অসংখ্য গাছপালা উপড়ে ও ভেঙে পড়েছে বলে জানিছেয়ে কন্ট্রোল রুম।

উপজেলা কৃষি অফিসার দিগ বিজয় হাজরা জানান, ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের তাণ্ডকে উপজেলায় কৃষকদের প্রায় কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে।

ঘরের উপর ভেঙে পড়েছে গাছ -সমকাল

উপজেলা এলজিইডি অফিস সূত্রে জানা গেছে, বুলবুলের কারণে উপজেলায় প্রায় ত্রিশ কিলোমিটার কাঁচা রাস্তা ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রোজী আকতার জানান, এ পর্যন্ত দুজন আহত হওয়ার খবর তারা পেয়েছেন। তবে উপজেলার ৯টি ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে সহস্রাধিক ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। ঘর বাড়ির পাশাপাশি অসংখ্য গাছপালা ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে।

কালিয়া (নড়াইল): ঘূর্নিঝড় বুলবুলের আঘাতে বিধ্বস্ত হয়েছে নড়াইলের কালিয়ার জনপদ। রোববার সকালে প্রবল বেগে বয়ে যাওয়া ওই ঝড়ে উপজেলার পূবাঞ্চলের কয়েকটি ইউনিয়নের গ্রামগুলোর অসংখ্য গাছপালা ও বহু কাঁচা ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হওয়াসহ প্রায় ৫ হাজার একর জমির রবি ফসল সম্পূর্ণ বিনষ্ট হয়েছে।

কালিয়ায় উপড়ে যাওয়া গাছ -সমকাল

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জানান, তাৎক্ষণিকভাবে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ নিরুপণ করা সম্ভব হয়নি। তবে ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ নিরুপণে ইউপি চেয়ারম্যানরা কাজ করছেন।

পাথরঘাটা (বরগুনা): বরগুনার পাথরঘাটায় ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের আঘাতে সহস্রাধিক ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। এসময় ঘরের নিচে চাপা পড়ে ৫ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এ ছাড়া হাজার হাজার গাছপালা ভেঙে পড়েছে। রাস্তাঘাট ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে যোগাযোগ ব্যবস্থা বন্ধসহ বিদ্যুত ব্যবস্থার ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে।

রাস্তার ওপর হেলে পড়া গাছ সরাচ্ছেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা -সমকাল

পাথরঘাটা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. হুমায়ুন কবির জানান, ঝড়ের তাণ্ডবে উপজেলার সহস্রাধিক ঘরবাড়ি ভেঙে গেছে। এ ছাড়া গাছপালার ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। আমরা ক্ষয়ক্ষতির তালিকা করছি।

বাউফল (পটুয়াখালী): ঘূর্ণিঝড় বুলবুলের তাণ্ডবে বাউফলের বিভিন্ন স্থানে গাছপালা উপড়ে গেছে। বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসহ কাঁচা ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। ঝড়ের কারণে আমন ধান মাটিতে শুয়ে পড়েছে।

জানা গেছে, রোববার সকালে প্রচণ্ড বৃষ্টির সঙ্গে দমকা হাওয়ায় শতাধিক কাঁচাপাকা ঘরবাড়ি বিধ্বস্ত হয়েছে। গাছপালা উপড়ে পড়ে সড়কে যান চলাচলে প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি হয়েছে। ছোট-বড় প্রায় ১৪টি চরের ফসলি জমির শতশত হেক্টর আমন ধান পানিতে তলিয়ে গেছে।

বাউফল উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পিজুস চন্দ্র দে বলেন, সরকারিভাবে এখন পর্যন্ত ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ নির্ধারণ করা হয়নি। তবে জনসচেতনতার কারণে বড় ক্ষয়ক্ষতি হয়নি।

Please Share This Post in Your Social Media

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

More News Of This Category
© 2018 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | dbdnews24.com
Site Customized By NewsTech.Com