1. azadzashim@gmail.com : বিডিবিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম :
  2. litonsaikat@gmail.com : neelsaikat :

উখিয়ায় চেয়ারম্যান শাহ আলমকে আওয়ামী লীগ থেকে থেকে বহিষ্কারের সুপারিশ

  • Update Time : রবিবার, ২১ মার্চ, ২০২১
  • ৩৫২ Time View

নিজস্ব প্রতিবেদক : “আমি না চাইলেও শেখ হাসিনা ঘরে এসে আমাকে নৌকা প্রতীক দিয়ে যাবে” উখিয়ার হলদিয়াপালং ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আলমের ঔদ্ধত্যপূর্ণ এমন বক্তব্যের প্রতিবাদে উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের এক প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে। সমাবেশে দাবি করা হয়েছে বেফাস বক্তব্যের মধ্য দিয়ে তিনি আওয়ামী লীগকে প্রশ্নবিদ্ধ করেছেন এবং দলের ভাবমূর্তি নষ্ট করেছেন। তাকে দল থেকে বহিস্কার করার জন্য দলীয় হাই কমান্ডে লিখিত আবেদন করেছে উখিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগ।

রোববার (২১ মার্চ) বিকেল ৩টায় উখিয়া মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় মাঠ প্রাঙ্গনে এই সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

প্রতিবাদ সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে উখিয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি অধ্যক্ষ হামিদুল হক চৌধুরী বলেন, যে পুলিশ বাহিনী স্বাধীনতা সংগ্রামে রাজারবাগ পুলিশ লাইনে অকাতরে পাখির মতো পাকিস্তানি বাহিনীর হাতে শহীদ হয়েছে৷ বাংলাদেশের প্রতিটি খনে খনে বিপদের দিনে জঙ্গী দমনে যে পুলিশ বাহিনী গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছে। সেই পুলিশ বাহিনীকে চেয়ারম্যান শাহ আলম যদি গুন্ডা বাহিনী বলে থাকে, তাহলে চিন্তা করতে হবে তাকে কে পরিচালনা করতেছে।

পুলিশ ভোট ডাকাতি বা পক্ষপাতিত্ব করেছে, এই ধরনের কোন তথ্য প্রমাণ কি চেয়ারম্যান শাহ আলমের কাছে আছে?

এছাড়াও বক্তব্যে তিনি বলেছেন, তিনি না চাইলেও শেখ হাসিনা ঘরে এসে তাকো নৌকা প্রতীক দিয়ে যাবেন।

হামিদুল হক চৌধুরী বলেন, এসব বক্তব্যের মধ্য দিয়ে শাহ আলম আওয়ামী লীগকে প্রশ্নবিদ্ধ করেছেন এবং দলের ভাবমূর্তি নষ্ট করেছেন। তাকে দল থেকে বহিস্কার করার জন্য দলীয় হাই কমান্ড বরাবরে ভিডিও ফুটেজ সহ লিখিত অভিযোগ পত্র প্রেরণ করা হবে।

তিনি আরো বলেন, আওয়ামী লীগ কারো পৈত্রিক সম্পত্তি মনে করলে ভুল হবে। সাংগঠনিক নিয়মে আওয়ামী লীগ চলবে। আওয়ামী লীগকে নিয়ে ছেলে খেলা খেলতে দেওয়া হবে না বলে হুশিয়ারী উচ্চারণও করেন তিনি।

উখিয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি আমিনুল হক আমিনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখেন জেলা মুক্তিযোদ্ধা লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা জাফর আলম চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মাহাবুবুল আলম মাহাবুব, পালংখালী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি এমএ মঞ্জুর, উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক ইমাম হোসেন, উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি মকবুল হোসেন মিথুন, যুবলীগ নেতা মাসুদ আমিন শাকিল, রাজাপালং ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক রাসেল উদ্দিন সুজন।

সভা পরিচালনা করেন উপজেলা সৈনিক লীগের সভাপতি আনিসুল ইসলাম।

এসময় উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগসহ অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য যে, গত ১৬ মার্চ রাত ১১টায় এ উপজেলার হলদিয়াপালং ইউনিয়নের ৭ নং ওয়ার্ডের হাতির ঘোনা এলাকায় আগাম নির্বাচনী প্রস্তুতি সভায়
হলদিয়াপালং ইউনিয়নের চেয়ারম্যান শাহ আলম চট্টগ্রামের আঞ্চলিক ভাষায় বলেন, ‘পুলিশ সরকারের গুন্ডা বাহিনী’ পুলিশ দিয়ে পিটিয়ে পিটিয়ে নৌকায় ভোট নেওয়া হবে। নৌকা প্রতীক তার, শেখ হাসিনা তাকে ঘর থেকে ডেকে নিয়ে নৌকা প্রতীক দিবেন। তিনি নৌকা প্রতীক নিয়ে অন্যকোন প্রতীকে ভোট দিতে দিবেন না।

নির্বাচনী প্রস্তুতি সভায় চেয়ারম্যান শাহ আলম বলেন, তার ভাই প্রশাসনের প্রতিটি স্তরে স্তরে অনুসারী বসিয়ে গেছেন। আগামী আরো ১০ বছর তারা ক্ষমতা এখনো আছে এবং তারা সেই ক্ষমতা ভোগ করবে।

Please Share This Post in Your Social Media

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

More News Of This Category
© 2018 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | dbdnews24.com
Site Customized By NewsTech.Com