1. azadzashim@gmail.com : বিডিবিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম :
  2. litonsaikat@gmail.com : neelsaikat :

উখিয়ার পালং গার্ডেনস্থ স্কাই থাই রেস্টুরেন্টের বর্জ্যের দুর্গন্ধে অতিষ্ঠ স্থানীয়রা

  • Update Time : রবিবার, ২৭ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ২৯৭ Time View

নিজস্ব প্রতিবেদক : কক্সবাজারের উখিয়ার পালং গার্ডেনস্থ স্কাই থাই ফুড ফ্যাক্টরি নামক রেস্টুরেন্টের বর্জ্যরে দুর্গন্ধে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে স্থানীয় জন সাধারণ। স্থানীয়রা গত এক বছরে ওই রেস্টুরেন্ট কর্তৃপক্ষকে একাধিকবার বিষয়টি অবগত করলেও বর্জ্য ব্যবস্থাপনার জন্য কোন ধরণে উদ্যোগ গ্রহণ করেনি বলে জানিয়েছে ওই এলাকায় বসবাস করা আলমগীর মাহমুদ। তিনি আরো বলেন, ওই রেস্টুরেন্টের মালিক পক্ষের সরওয়ার নামক ব্যাক্তি এসবের জন্য দায়ী।

নাম প্রকাশে অনুচ্ছিক এক ব্যক্তি বলেন, সরওয়ার প্রায় সময় সরকারের শীর্ষ পর্যায়ের সাবেক এক কর্মকর্তার নাম ভাঙ্গিয়ে দীর্ঘদিন ধরে এলাকার মানুষকে হুমকি ধমকি দিয়ে আসছে। শুধু তাই নয়, সেই কোন নিয়ম নীতির তোয়াক্কা না করেন প্রভাব খাটিয়ে স্থানীয় অসহায় মানুষের জমি দখলের অপচেষ্টাও চালিয়ে আসছে বলে অভিযোগ করেন এ সরওয়ারের বিরুদ্ধে।

২৭ ডিসেম্বর (রবিবার) সকাল ১১ টায় সরেজমিন পরিদর্শনে দেখা যায়, স্কাই থাই ফুড ফ্যাক্টরি নামক রেস্টুরেন্টে গিয়ে দেখা যায়, রেস্টুরেন্টটির সামনে নাদন্দিক কারুকাজে সাজানো হলেও পিছনে আবর্জনার ভাগাড়, যেন উপরে ফিট ফাট ভিতরে সদর ঘাট। রেস্টুরেন্টের নানা রকম ময়লা আবর্জনা ও বর্জ্য অপরিকল্পিতভারে পাশের জমিতে ফেলায় পরিবেশ মারাতœকভাবে দূষিত হচ্ছে। মাত্রাতিরিক্ত দুর্গন্ধের কারণে বসবাসের অযোগ্য হচ্ছে পরিবেশ-পতিবেশ। বয়স্ক লোকজনের শ^াসকষ্টসহ নানা রোগের প্রকোপ বেড়েছে। এরপরও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নজরে না আসায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন স্থানীয় সচেতন মহল।

স্থানীয় জাফর আলম বলেন, গত কয়েকদিন আগে আমার ভাতিজির বিয়ের অনুষ্ঠানে বর পক্ষের লোকজন আসতে হিমশীম খেয়েছে। দুর্গন্ধের কারণে তারা খাবার পর্যন্ত খেতে পারিনি। এটা নিয়ে দুপক্ষের মধ্যে অনেক বড় ভুল বুঝাবুঝির সৃষ্টি হয়েছে। বিষয়টির ব্যাপারে সুনজর দেওয়ার জন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসারের প্রতি আবেদনও জানান তিনি।

রফিক নামক এক ব্যক্তি বলেন, আমরা উন্নয়নের পক্ষে। বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠলে এলাকার উন্নয়ন হবে। তাই বলে আমরা আমাদের পরিবার পরিজনকে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশের দিকে ঠেলে দিতে পারি না। অপরিকল্পিতভাবে বর্জ্য যত্রতত্র ফেলায় আমাদের জীবন হুমকির মুখে পড়ছে। তিনি বিষয়টি গুরুত্ব সহকারে বিবেচনা করে পরিবার পরিজনকে নিয়ে বেঁচে থাকার পরিবেশ নিশ্চিত করতে উপজেলা প্রশাসনের প্রতি অনুরোধ জানান।

সরওয়ার সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, আমি স্কাই থাই ফুড ফ্যাক্টরি নামক রেস্টুরেন্টের মালিক না, জমির মালিক। তবে তিনি ময়লা আবর্জনা ও বর্জ্য অপব্যবস্থাপনার বিষয়টি অস্বীকার করেন। এমন কি জমি দখলের বিষয়টিও সত্য নয় বলে জানান।

স্কাই থাই ফুড ফ্যাক্টরি নামক রেস্টুরেন্টের সিইও আবুহেনা মোস্তাফা কামালের সাথে যোগায়োগ করা হলে দুর্গন্ধ ছড়ানোর বিষয়টি স্বীকার করে তিনি বলে, জমির মালিক সরওয়ার ময়লা আবর্জনা ফেলে জমিটি ভরাট করে দিতে বলেছে। তার নির্দেশে ওখানে ময়লা আবর্জনা ফেলা হচ্ছে। তবে কয়েকদিন পরপর আমরা ব্লিচিং পাউডার ছিটেয়ে দুর্গন্ধ নিয়ন্ত্রণে রাখার চেষ্টা করি। এ বিষয়ে প্রতিবেদন প্রকাশ না করার অনুরোধ জানান তিনি।

উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) আমিমুল এহেছান খানের বলেন, প্রশাসনের নিয়মিত অভিযান অব্যাহত রয়েছে। এ বিষয়েও শীঘ্রই অভিযান পরিচালনা করা হবে।

Please Share This Post in Your Social Media

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

More News Of This Category
© 2018 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | dbdnews24.com
Site Customized By NewsTech.Com